Breaking News :

ভুলে ভরা সংবাদে অনেকেই বিভ্রান্ত হচ্ছেন

করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট সদর হাসপাতালে আইসোলেশন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এক নারী। এমনই একটি খবর প্রত্যেকটি নিউজ পোর্টাল জায়গা করে নিয়েছিল।

কিন্তু নিউজটিকে ভুল প্রমানিত করে দিলো তার করোনার টেষ্ট। গতকাল রোববার রাতে সিলেট থেকে তাঁর নমুনা পরীক্ষার ফল ‘নেগেটিভ’ এসেছে। এ তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন আরএমও আহমেদ ফয়সল জামান (সদর হাসপাতাল)।

হাসপাতাল সুত্র থেকে জানা যায়, তিনি গত ২৫ এপ্রিল মারা যান। ২৪ এপ্রিল তার শ্বাস কষ্ট থাকায় তার আত্বিয় স্বজন তাকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন এবং তাকে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। ভর্তি করার তিন দিন আগে তার প্রচরি বমি হতো। এর তিনদিন পর গত ২৪ তারিখ তারা শ্বাসকষ্ট দেখা দেয়। ফলে তাকে প্রথমে নেওয়া হয় শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। কিন্তু সেখানে পর্যাপ্ত সুযোগ সুবিধা না থাকায় তাকে আরোও উন্নত চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয় মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট সদর হাসপাতালে। যেহেতু তার প্রচুর শ্বাস কষ্ট হচ্ছিল তাই তাকে আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল। তার পরিবার থেকে জানা যায়, তার শ্বাসকষ্ট জনিত কোন রোগ ছিল না।

তিনি মারা যাওয়ার পর হাসপাতাল এবং স্থানীয় প্রশাসন সন্দেহ করেন উনার করোনা হয়েছিল এবং করোনার কারনেই উনার মৃত্যু হয়েছে। তাই উনার পুরো পরিবারকে কোয়ারেন্টেন এ থাকার নির্দেশ দেওয়া হয় এবং প্রশাসন থেকে নির্দেশ দেওয়া হয় মৃত রোগী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ছিলেন কি না পরীক্ষা করার। তাঁর শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে সিলেটের ল্যাবে পাঠানো হয়।

আরএমও আহমেদ ফয়সল জামান (সদর হাসপাতাল) জানান, মূলত যে সকল রোগীর ফলাফল পজেটিভ আসে তাদের কাগজ বা রিপোর্ট দ্রুত পাঠিয়ে দেওয়া হয় এবং নেগেটিভগুলো আসতে একটু দেড়ী হয়। যেহেতু ঐ মহিলা রোগীর নেগেটিভ আসছে তাই তার রিপোর্ট পেতে আমাদের একটু সময় বেশি লেগেছে।

বাংলা ক্যালেন্ডার