Breaking News :

ক্যাসিনো কান্ডে পাপনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান

সাকিবের পিছনে গিয়ে লাগতে গিয়ে বিসিবি সভাপতির অবস্থা এখন হয়ে পরেছে সাকিবের চেয়ে আরোও কঠিন থেকে কঠিনতম। কোন কিছুই যেন তার পিছু ছাড়ছে না। খেলোয়ার আন্দোলনের সময় মুখ ফসকে বলে ফেলেন ফিক্সিং এর কথা। এর পর ফেইসবুক সহ অন্যান্য সামাজিক মাধ্যমে ক্যাসিনো খেলার ভিডিও ও স্টিল ছবি ভাসছে। ভিডিওতে দেখা যায়, সিঙ্গাপুরের একটি ক্যাসিনোতে বসে পাপন জুয়া খেলছেন। সমালোচিত আলোচিত ঘটনার মাঝে জন্ম দিয়েছে পাপনের পদত্যাগের ‍গুঞ্জন। কয়েক সেকেন্ডের এই ভিডিও নিয়ে গতকাল থেকে তোলপাড় শুরু হয় সোশ্যাল সাইটে। এই ভিডিও সরকারেরও দৃষ্টি এড়ায়নি। খোদ ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী এই ঘটনায় বিব্রত। সরাসরি কোনো মন্তব্য না করলেও বিষয়টিকে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল দেখছেন ‘নৈতিকতার অবক্ষয়’ হিসেবে।

তিনি বিষয়টি নিয়ে খুব বিব্রত। গণমাধ্যমকে জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘বাংলাদেশে ক্যাসিনি একটি অপরাধ। সেহেতু যারা এ অপরাধ করছে তাদের আমরা শাস্তি দিচ্ছি। এমন অনেকের কথাই শুনেছি যে, বাইরে এসব করত। তবে আমি এখনো (ভিডিও) দেখিনি, শুনেছি। তাই এসব নিয়ে কিছু বলতে পারছি না। তবে সবাইকেই শাস্তি পাওয়া উচিত।’

এছাড়া সাকিব আল হাসানের শাস্তি কমানোর জন্য বিসিবির সঙ্গে একযোগে কাজ করছেন বলে জানিয়েছেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী। জুয়াড়ির প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেও আইসিসিকে না জানানোয় শাস্তি ভোগ করতে হবে অন্তত ১ বছর। শাস্তির বিরুদ্ধে তার আপিলের কোনো সুযোগ নেই।

তিনি আরোও বলেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর সাথে এ বিষয়ে আলাপ আলোচনা করছি। হয়তো কিছু দিনের মধ্যে আমরা একটি সিদ্ধান্তে আসতে পারবো। কারন, বিসিবি সভাপতি যা করেছেন তা মেনে নেওয়ার মতো নয়। তিনি আরোও বলেন, দয়া করে আমার বক্তব্য কেউ যেন ভুল ভাবে উপস্থাপন না করে।

বাংলা ক্যালেন্ডার